উদ্যোক্তা তৈরিতে বাগেরহাটে প্রশিক্ষণ দেবে বিডা

উদ্যোক্তা তৈরিতে বাগেরহাটে প্রশিক্ষণ দেবে বিডা

নতুন উদ্যোক্তা সৃষ্টি ও উদ্যোক্তাদের দক্ষতা বৃদ্ধি করতে বাগেরহাটে প্রশিক্ষণ দেবে বাংলাদেশ বিনিয়োগ উন্নয়ন (বিডা) কর্তৃপক্ষ। প্রশিক্ষণ গ্রহণের ফলে একজন উদ্যোক্তা ব্যবসা-বাণিজ্য পরিচালনা ও ব্যবস্থাপনায় দক্ষ হয়ে উঠবে। যা আত্মকর্মসংস্থান, নতুন ব্যবসা উদ্যোগ সৃষ্টি ও বেকারত্ব নিরসনে ভূমিকা রাখবে।

প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ের বাংলাদেশ বিনিয়োগ উন্নয়ন কর্তৃপক্ষের ‘উদ্যোক্তা সৃষ্টি ও দক্ষতা উন্নয়ন’ (ইএসডিপি) শীর্ষক প্রকল্পের আওতায় দেশের ৬৪ জেলায় প্রশিক্ষণ কেন্দ্রের মাধ্যমে আগ্রহী উদ্যোক্তাদের মাসব্যাপী প্রশিক্ষণ কোর্স চালু হয়েছে।

এ প্রকল্পে বাগেরহাট জেলায় প্রতিমাসে ২৫ জন করে ১৫ মাসে মোট ৩৭৫ জন আগ্রহী উদ্যোক্তাকে প্রশিক্ষণ দেওয়া হবে। এক মাস প্রশিক্ষণ গ্রহণের পর একজন প্রশিক্ষণার্থী ব্যবসা শুরুর প্রক্রিয়া, আরজেএসসি নিবন্ধন, শুল্ক ও ভ্যাট, আমদানি-রপ্তানি, ব্যবস্থাপনা দক্ষতা, ব্যাংক অ্যাকাউন্ট খোলা, এলসি, ঋণ ও বীমা, বিনিয়োগ পরিকল্পনা সম্পর্কে বিস্তারিত জানতে পারবে। এছাড়াও বাংলাদেশ বিনিয়োগ উন্নয়ন কর্তৃপক্ষের সেবা, সুবিধা ও ওয়ানস্টপ সার্ভিস, পরিবেশ ছাড়পত্র, পণ্যের মান নিয়ন্ত্রণ, ওজন ও পরিমাণ নিশ্চিত, সাপ্লায়ার্স ও লিংকেজ, সংশ্লিষ্ট আইনসমূহ সম্পর্কে প্রশিক্ষণার্থীদের অবহিত করা হবে। সংশ্লিষ্ট বিষয়ে অভিজ্ঞ ব্যক্তিরা প্রশিক্ষণ দেবে প্রশিক্ষণার্থীদের।
এসব প্রশিক্ষণের পরে আগ্রহী উদ্যোক্তাদের বিনিয়োগের বিষয়ে কাউন্সিলিংয়েরও ব্যবস্থা রেখেছেন বিনিয়োগ উন্নয়ন কর্তৃপক্ষ। এর পাশাপাশি উচ্চ প্রযুক্তি সম্পন্ন বহুজাতিক ও আন্তর্জাতিক ভারী ম্যানুফ্যাকচারিং শিল্পে সরবরাহের জন্য প্রাথমিক ও মধ্যম পর্যায়ের কাঁচামাল, যন্ত্রাংশ সরবরাহের জন্য সহযোগিতা করা হবে।

এসব প্রশিক্ষণ কার্যক্রম পরিচালনার জন্য বিনিয়োগ উন্নয়ন কর্তৃপক্ষ বাগেরহাটের খারদ্বারে প্রকল্প অফিস নিয়েছে। সেখানে প্রশিক্ষণ সেন্টারও তৈরি করা হয়েছে। আগ্রহীদের আবেদনের প্রেক্ষিতে প্রতিমাসে ২৫ জনকে প্রশিক্ষণের সুযোগ দেবে বিডা কর্তৃপক্ষ। প্রশিক্ষণার্থী বাছাইয়ের জন্য বাগেরহাট জেলা প্রশাসককে সভাপতি ও এ প্রকল্পের প্রশিক্ষককে সদস্য সচিব করে ১১ সদস্যের একটি কমিটিও গঠন করেছে ইএসডিপি।

বাগেরহাট প্রেসক্লাবের সভাপতি আহাদ উদ্দিন হায়দার বলেন, বেকারত্ব নিরসন আত্মকর্মসংস্থান ও উদ্যোক্তা তৈরিতে জেলা পর্যায়ে বর্তমান সরকার যে প্রশিক্ষণ প্রদানের উদ্যোগ নিয়েছে নিঃসন্দেহে তা সময়োপযোগী উদ্যোগ। এ উদ্যোগ সফল হলে সারাদেশে নতুন ও ভিন্ন ধারার কর্মচাঞ্চল্য সৃষ্টি হবে, যা জাতীয় অর্থনীতির জন্য অত্যন্ত ইতিবাচক হবে।

সরকারি পিসি কলেজের অর্থনীতি বিভাগের সহযোগী অধ্যাপক ফারুখে আযম আব্দুস সালাম বলেন, জেলা পর্যায়ে এ ধরনের প্রশিক্ষণের সুযোগ আগে ছিল না। জেলায় এই প্রশিক্ষণ সেন্টার হওয়ার ফলে জেলার শিক্ষিত বেকাররা প্রশিক্ষণ নিতে পারবেন। এ প্রশিক্ষণ গ্রহণের ফলে শিক্ষিত ছেলে-মেয়েরা ব্যবসা সম্পর্কে সঠিক ধারণা লাভ করতে পারবে।

ইএসডিপি শীর্ষক প্রকল্পের বাগেরহাট জেলা প্রশিক্ষক এমডি মশিউর রহমান বলেন, আমরা প্রশিক্ষণ প্রদানের সব প্রক্রিয়া সম্পন্ন করেছি। ইতোমধ্যে প্রথম ব্যাচের ২৫ জনের বাছাই প্রক্রিয়া সম্পূর্ণ করেছি। ১ সেপ্টেম্বর উদ্বোধনী অনুষ্ঠানের মধ্য দিয়ে প্রথম ব্যাচের প্রশিক্ষণ শুরু হবে। এ প্রশিক্ষণের মাধ্যমে বাগেরহাটে নতুন করে অনেক উদ্যোক্তা সৃষ্টি হবে।

শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *