এশিয়াকে ‘রক্ষা’ করতে হাত মেলাচ্ছে ভারত-রাশিয়া

এশিয়াকে ‘রক্ষা’ করতে হাত মেলাচ্ছে ভারত-রাশিয়া

তাজা খবর:

মধ্য এশিয়ায় যাতে তালেবানের আদর্শের প্রভাব না পড়ে সেজন্য হাত মেলাচ্ছে ভারত-রাশিয়া। হাতে হাত মিলিয়ে মধ্য এশিয়াকে স্থিতিশীল রাখতে কাজ করবে দেশ দুটি।

এ বিষয়ে আলোচনা করতে বুধবার (৮ সেপ্টেম্বর) বৈঠকে বসেছিলেন ভারত-রাশিয়ার জাতীয় নিরাপত্তা উপদেষ্টা অজিত ডোভাল এবং নিকোলায় পত্রুশেভ।

ভারতীয় গণমাধ্যম হিন্দুস্তান টাইমসের প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, ভারতীয় প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির সঙ্গেও বৈঠক করেছেন রাশিয়ার জাতীয় নিরাপত্তা উপদেষ্টা নিকোলায় পত্রুশেভ। এই বৈঠকে উভয় পক্ষই আশঙ্কা প্রকাশ করেছে তালেবান শাসনে থাকা কাবুল নিয়ে। এই বৈঠকে উপস্থিত ছিলেন উভয় দেশের গোয়েন্দা সংস্থার প্রধানরাও।

প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, তাজিকিস্তান, পাকিস্তান ও তুরস্ক উজবেকিস্তানের মতো মধ্য এশীয় দেশে প্রভাব বিস্তারের প্রচেষ্টা চালাচ্ছে বলে গোয়েন্দাদের কাছে তথ্য রয়েছে। বিভিন্ন এনজিও-র মাধ্যমে এই প্রভাব বিস্তারের চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছে তুরস্ক। এই দুই দেশই আফগানিস্তানে শরিয়াহ আইন লঘু করে তালেবানের শাসনের পক্ষে মত প্রকাশ করেছে।

জানা গেছে, আল-কায়দা ঘনিষ্ঠ উজবেক জঙ্গি গোষ্ঠী ইসলামিক মুভমেন্ট অব উজবেকিস্তানের বহু জঙ্গি আফগানিস্তানে রয়েছে তালেবানকে সাহায্য করতে। এমন পরিস্থিতিতে ভারত ও রাশিয়া হাতে হাত মিলিয়ে মধ্য এশিয়াকে জঙ্গিমুক্ত রাখতে কাজ করবে বলে সিদ্ধান্ত নিয়েছে।

আফগানিস্তান থেকে আমেরিকার সৈন্যদের প্রস্থানকে তাদের জন্য এক ধরনের পরাজয় হিসেবে মনে করছে অনেক দেশ। এ কারণে রাশিয়া প্রাথমিকভাবে তালেবানের পক্ষ নিয়ে কথা বলেছিল। তবে এখন মধ্য এশিয়ায় আঞ্চলিক শান্তি বজায় রাখতে তালেবানকে শান্ত রাখতে চায় রাশিয়া। এদিকে ভারত চায় কাশ্মীরে যেন উগ্রপন্থা না ছড়ায়।

হিন্দুস্তান টাইমসের প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, মধ্য এশিয়ার তাজিকিস্তানের সঙ্গে ভারতের সম্পর্ক খুবই ভালো। আমেরিকা আফগানিস্তান ছেড়ে চলে যাওয়ায় আশঙ্কা করা হচ্ছে মধ্য এশিয়া অশান্ত করে তুলতে পারে তালেবান।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *