ছাত্রদলকে পকেটে রাখতে রিজভী-আমানের পাল্টাপাল্টি কর্মসূচিতে বিরক্ত গয়েশ্বর!

ছাত্রদলকে পকেটে রাখতে রিজভী-আমানের পাল্টাপাল্টি কর্মসূচিতে বিরক্ত গয়েশ্বর!

নিউজ ডেস্ক : পূর্ব নোটিশ ছাড়া বয়স সীমা নির্ধারণসহ অন্যান্য কারণ দেখিয়ে ছাত্রদলের কমিটি ভেঙ্গে দেয়ার বিক্ষুব্ধদের আন্দোলনে অস্বস্তিতে পড়েছে বিএনপি। বিএনপির দুজন নেতার উসকানি ও প্রভাব বিস্তারের কারণে বিএনপি সৃষ্ট সমস্যা থেকে বের হতে পারছে না বলেও জানা গেছে।

ছাত্রদলের চলমান বিশৃঙ্খলায় আমান উল্লাহ্‌ আমানের উসকানিতে বয়স্ক-বিবাহিতদের পিটুনিতে গত ১১ জুন পল্টন ছাড়া হয়েছিলেন রুহুল কবির রিজভীসহ তার সমর্থকরা। তাই দলে নিজের অবস্থান বুঝিয়ে দিয়ে এবং স্থায়ী কমিটির পদ বিতরণে তারেক রহমানের নতুন সিদ্ধান্ত জানার পরপরই লন্ডনের দৃষ্টি আকর্ষণ করতে নিজ অনুসারীদের নিয়ে রাজপথে ঝটিকা মিছিল করেছেন দলটির সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব রিজভী আহমেদ।

জানা গেছে, বিগত কয়েকদিন আমান বাহিনীর বিভিন্ন কর্মসূচিতে কোণঠাসা হয়ে পড়েছিলেন রিজভীসহ তার সমর্থকরা। তাই আমান বাহিনীকে শায়েস্তা করে ছাত্রদল তথা বিএনপিতে নিজের প্রভাব বজায় রাখার প্রচেষ্টায় শুক্রবার (২১ জুন) কড়া রোদ উপেক্ষা করে মিছিল করেছেন রিজভী। রিজভীর এই প্রয়াস সাময়িক প্রশংসিত হলেও ছাত্রদলকে নিয়ে তার অতিরিক্ত বাড়াবাড়িতে বিরক্তি প্রকাশ করেছেন দলটির একাধিক সিনিয়র নেতৃবৃন্দ।

এ বিষয়ে বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য গয়েশ্বর চন্দ্র রায় বলেন, সত্যি বলতে-ছাত্রদলকে নিয়ে বড় ধরণের অস্বস্তিতে পড়েছে দল। তাদের দাবি মেনে নেয়া সম্ভব নয়। যদিও আমাদের দলের কেউ কেউ তাদের আন্দোলন উস্কানি দিচ্ছে। এছাড়া রিজভী ও আমান গ্রুপের বাড়াবাড়ির কারণে আমরা ছাত্রদল নিয়ে কার্যকরী সিদ্ধান্তে আসতে পারছি না। দুই গ্রুপে শক্তির মহড়া চলছে। রিজভী-আমানের কারণে বিএনপি সর্বত্র বিতর্কিত হচ্ছে, যা কাম্য নয়।

তিনি আরো বলেন, ছাত্রদলকে পকেটে ভরতে এই দুই নেতা পাল্টাপাল্টি মিছিল-মিটিং করছেন। বিএনপিকে তারা ব্যক্তিগত সংগঠনে পরিণত করার অপচেষ্টা করছেন। প্রভাব বিস্তারে পাল্টাপাল্টি মিছিল না করে ক্ষমতাসীনদের বিরুদ্ধে মিছিল করলে দলের হারানো শক্তি ফিরে আসতো। যার কারণে বোঝাই যাচ্ছে বিএনপিতে মাথামোটা নেতাদের সংখ্যা দিন দিন বৃদ্ধি পাচ্ছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *