জাতিসংঘে সদস্য পদ লাভ ও বঙ্গবন্ধুর ভাষণের দিবস পালনের সিদ্ধান্ত

জাতিসংঘে সদস্য পদ লাভ ও বঙ্গবন্ধুর ভাষণের দিবস পালনের সিদ্ধান্ত

তাজা খবর:

জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্মশতবার্ষিকী উদযাপনের অংশ হিসেবে জাতিসংঘে বাংলাদেশের সদস্য পদ লাভ এবং জাতিসংঘে বঙ্গবন্ধুর ভাষণ দেয়ার দিবস পালনের সিদ্ধান্ত নিয়েছে সরকার।

জাতিসংঘে বাংলাদেশের সদস্য পদ অর্জন উপলক্ষে ১৭ সেপ্টেম্বর আলোচনা অনুষ্ঠান এবং জাতিসংঘে বঙ্গবন্ধুর ভাষণ প্রদান উপলক্ষে ২৫ সেপ্টেম্বর আলোচনা অনুষ্ঠান ও প্রামাণ্যচিত্র সম্প্রচার করা হবে।

শনিবার (১২ সেপ্টেম্বর) জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্মশতবার্ষিকী উদযাপন জাতীয় বাস্তবায়ন কমিটির এক অনলাইন সভায় এ সিদ্ধান্ত হয়। জাতীয় বাস্তবায়ন কমিটির সভাপতি জাতীয় অধ্যাপক রফিকুল ইসলামের সভাপতিত্বে এবং কমিটির প্রধান সমন্বয়ক কামাল আবদুল নাসের চৌধুরীর সঞ্চালনায় অনুষ্ঠিত সভায় বিভিন্ন উপকমিটির আহ্বায়ক, সদস্য-সচিব ও অন্য সদস্যরা অংশ নেন।

এক সরকারি তথ্য বিবরণীতে এ কথা জানানো হয়েছে।

সভায় গৃহীত সিদ্ধান্তে জানানো হয়, ১৯৭৪ সালের ১৭ সেপ্টেম্বর জাতিসংঘে বাংলাদেশের সদস্য পদ অর্জনে বঙ্গবন্ধুর অসামান্য ও গৌরবদীপ্ত ভূমিকা জনগণের সামনে তুলে ধরতে একটি আলোচনা অনুষ্ঠান ১৭ সেপ্টেম্বর বাংলাদেশ টেলিভিশনসহ সব বেসরকারি টেলিভিশন চ্যানেল, অনলাইন মিডিয়া ও সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে সম্প্রচার করা হবে।

এছাড়া ১৯৭৪ সালের ২৫ সেপ্টেম্বর বঙ্গবন্ধু কর্তৃক জাতিসংঘে প্রথমবারের মতো বাংলায় প্রদত্ত ঐতিহাসিক ভাষণের ওপর আরও একটি আলোচনা অনুষ্ঠান এবং একটি প্রামাণ্যচিত্র বাংলাদেশ টেলিভিশনসহ সব বেসরকারি টেলিভিশন চ্যানেল, অনলাইন মিডিয়া ও সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে সম্প্রচার করা হবে।

সভায় তথ্যমন্ত্রী হাছান মাহমুদ, শিক্ষামন্ত্রী দীপু মনি, পররাষ্ট্রমন্ত্রী এ কে আব্দুল মোমেন, যুব ও ক্রীড়া প্রতিমন্ত্রী মো. জাহিদ আহসান রাসেল, পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী মো. শাহরিয়ার আলম, সংস্কৃতি বিষয়ক প্রতিমন্ত্রী কে এম খালিদ, সংসদ সদস্য ও সাংস্কৃতিক ব্যক্তিত্ব আসাদুজ্জামান নূর, যুব ও ক্রীড়া মন্ত্রণালয়ের সচিব মো. আখতার হোসেন, সংস্কৃতি বিষয়ক সচিব মো. বদরুল আরেফীন, তথ্য সচিব কামরুন নাহার, বাংলাদেশ টেলিভিশনের মহাপরিচালক এস এম হারুন অর রশীদ, প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ের মহাপরিচালক মো. খলিলুর রহমান, সশস্ত্র বাহিনী বিভাগের মহাপরিচালক কমোডর বশীর উদ্দিন আহমেদ, বাংলা একাডেমির মহাপরিচালক হাবীবুল্লাহ সিরাজী, সাংস্কৃতিক ব্যক্তিত্ব রামেন্দু মজুমদার, সাংস্কৃতিক ব্যক্তিত্ব সৈয়দ হাসান ইমাম, কবি তারিক সুজাত, জাতীয় প্রেস ক্লাবের সাধারণ সম্পাদক ফরিদা ইয়াসমিন, এটকোর সহ-সভাপতি মোজাম্মেল হক এবং জাতীয় বাস্তবায়ন কমিটির কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।

শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *