ঢাকা থেকে শুরু ‘নিগ্রহকাল’-এর উৎসবযাত্রা

ঢাকা থেকে শুরু ‘নিগ্রহকাল’-এর উৎসবযাত্রা

বিনোদন রিপোর্ট:

পৃথিবীর দীর্ঘতম সমুদ্রসৈকতের মাত্র ৪০ কিলোমিটার দূরেই এই গ্রহের সর্ববৃহৎ শরণার্থী আশ্রয় শিবির। মিয়ানমারের রাখাইন রাজ্য থেকে নিগৃহীত ১১ লক্ষাধিক রোহিঙ্গা এখন আশ্রিত বাংলাদেশের কক্সবাজার জেলার উখিয়া ও টেকনাফে।
রোহিঙ্গা সংকট শুধু বাংলাদেশেরই প্রধান সংকট এমনটা নয়, আন্তর্জাতিকভাবেও এ মুহূর্তে চলমান বৈশ্বিক সংকটগুলোর অন্যতম। মূলত এই বিষয়টি পর্দায় তুলে আনার চেষ্টা করেছেন নির্মাতা প্রসূন রহমান। নির্মাণ করেছেন পূর্ণদৈর্ঘ্য প্রামাণ্য চলচ্চিত্র ‘নিগ্রহকাল’।
ছাড়পত্র পাওয়ার পর গেল ১৪ নভেম্বর ছবিটির প্রিমিয়ার শো অনুষ্ঠিত হয় রাজধানীর মহাখালীর স্টার সিনেপ্লেক্সে। এতে প্রচুর প্রশংসা কুড়ান সমালোচকদের। নির্মাতার মূল লক্ষ্য দেশ ও বিদেশের উল্লেখযোগ্য উৎসবগুলোতে ছবিটিকে নিয়ে যাওয়া। তারই শুরুটা হচ্ছে বাংলাদেশের সবচেয়ে বড় আয়োজন ঢাকা আন্তর্জাতিক চলচ্চিত্র উৎসবের মধ্য দিয়ে।
নির্মাতা জানান, চলমান ১৮তম ঢাকা আন্তর্জাতিক চলচ্চিত্র উৎসবে প্রদর্শিত হতে যাছে ‌‌‘নিগ্রহকাল’। যার মধ্য দিয়ে শুরু হচ্ছে ছবিটির উৎসবযাত্রা।

ঢাকা আন্তর্জাতিক চলচ্চিত্র উৎসব সূত্রে জানা গেছে, ১৭ জানুয়ারি রাজধানীর শাহবাগের পাবলিক লাইব্রেরি মিলনায়তনে বেলা ৩টায় ছবিটির প্রদর্শনী হচ্ছে।
প্রসূন রহমান জানান, এরপরই ছবিটি পর্যায়ক্রমে প্রদর্শিত হবে বেশ কয়েকটি আন্তর্জাতিক চলচ্চিত্র উৎসবে। সে প্রক্রিয়া চলছে।

ছবিটি প্রসঙ্গে নির্মাতার বক্তব্য এমন, ‘এই চলচ্চিত্রে চেষ্টা রয়েছে রোহিঙ্গা সংকটের সবদিকে আলো ফেলে দেখার। সংকটের ইতিহাস, কার্যকারণ এবং সমাধানের সূত্রগুলো দেশের ও আন্তর্জাতিক ব্যক্তিত্বদের বক্তব্যসহ বিশ্লেষণ করে দেখার। ভবিষ্যতের জন্য যা হয়তো একটি সংরক্ষণমূলক গুরুত্বপূর্ণ দলিল হয়ে থাকবার ক্ষমতা রাখে।’

শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *