পুলিশ ক্লিয়ারেন্সের তথ্য মিলবে ঘরে বসেই

পুলিশ ক্লিয়ারেন্সের তথ্য মিলবে ঘরে বসেই

ঢাকা বিভাগের ১৩ জেলার ৯৬ উপজেলা যুক্ত হলো পুলিশের তথ্য বাতায়নে। এর ফলে এসব জেলার বাসিন্দা পাসপোর্টসহ অন্যান্য পুলিশ ক্লিয়ারেন্স সেবা ঘরে বসেই পাবেন । পুলিশের কাজে স্বচ্ছতা আনতে ও জবাবদিহিতা নিশ্চিত করতেই এই উদ্যোগ নেওয়া হয়েছে বলে জানিয়েছেন ঢাকা রেঞ্জের উপ-মহাপুলিশ পরিদর্শক হাবিবুর রহমান। আগামী ১ ডিসেম্বর থেকে পুরোদমে কার্যকর হবে এই সেবা। আপাতত ঢাকা বিভাগের পাশাপাশি মহানগর পুলিশেও এই ব্যবস্থা চালুর উদ্যোগ নেওয়া হয়েছে। আর সারাদেশে এটি চালু করতে উদ্যোগ নিতে পারে পুলিশ সদর দপ্তর। পুলিশ সদর দপ্তর বিষয়টি নিয়ে কাজ করছে বলে জানা গেছে।

প্রসঙ্গত, নাগরিকদের জন্য নানা সেবাধর্মী কাজ করে থাকে পুলিশ। এর মধ্যে অপরাধমূলক মামলা-মোকদ্দমার নিষ্পত্তি বা বিচারবিষয়ক, পাসপোর্ট সংক্রান্ত তদন্ত, দেশি-বিদেশিদের তথ্য সংক্রান্ত প্রতিবেদন (পুলিশ ক্লিয়ারেন্স) প্রদান, চাকরিতে নিয়োগ সংক্রান্ত তথ্য প্রদান উল্লেখযোগ্য। তবে অভিযোগ রয়েছে যে ক্ষেত্রবিশেষ পুলিশ মামলা গ্রহণ থেকে শুরু করে আলোচ্য সেবা প্রদানের ক্ষেত্রে গড়িমসিসহ এমন সব আচরণ করে যাতে নাগরিকদের মনে পুলিশ সম্পর্কে নেতিবাচক ধারণা জন্মায়। এই অবস্থার নিরসন এবং জনগণকে হয়রানির হাত থেকে রক্ষা করতে চায় পুলিশ বিভাগ।

এ প্রসঙ্গে ঢাকা রেঞ্জের অতিরিক্ত উপ-মহাপুলিশ পরিদর্শক মো. আসাদুজ্জামান বলেন, সকল বিষয় বিবেচনায় নিয়ে তথ্য বাতায়ন উন্মুক্ত করা হয়েছে। এর ফলে নাগরিক সেবা দ্রুত ও স্বচ্ছ হবে, পাশাপাশি পুলিশের জবাবদিহিতা নিশ্চিত হবে। এই কর্মকর্তা জানান, অপরাধমূলক মামলা সংক্রান্ত কাজে নাগরিকরা থানায় আসেন মাসে কমবেশি ২০০ বার। কিন্তু পাসপোর্ট সেবার জন্য ঢাকা রেঞ্জের আওতায় কমবেশি গড়ে ৪০ হাজার নাগরিককে সেবা দিতে হয়। এছাড়া দেশি-বিদেশি নাগরিকদের ব্যক্তিগত তথ্য যাচাই-বাছাই প্রতিবেদন দিতে হয় ২০ হাজারের মতো। এক্ষেত্রে সেবা সহজলভ্য করতে তথ্যপ্রযুক্তির সহায়তায় একটি সফটওয়্যার তৈরি করা হয়েছে। এতে পুরো ঢাকা বিভাগকে যুক্ত করে পুলিশের সব ধরণের কার্যক্রমকে অন্তর্ভুক্ত করা হয়েছে।

শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *