প্রধানমন্ত্রী যুক্তরাজ্যে বিনিয়োগ সম্মেলন উদ্বোধন করবেন

প্রধানমন্ত্রী যুক্তরাজ্যে বিনিয়োগ সম্মেলন উদ্বোধন করবেন

তাজা খবর:

যুক্তরাজ্যের লণ্ডনে আজ বিনিয়োগ সম্মেলন। লন্ডন এসডব্লিউ১পি ৩ইই-তে রানী দ্বিতীয় এলিজাবেথ সেন্টার ব্রড স্যাংচুয়ারির চার্চিল অডিটোরিয়ামে এই শীর্ষ সম্মেলনের আয়োজন করা হয়েছে। এই সম্মেলন্ উপলক্ষ্যে বাংলাদেশ সিকিউরিটিজ অ্যান্ড এক্সচেঞ্জ কমিশন (বিএসইসি) লন্ডনে বাংলাদেশ বিনিয়োগ উন্নয়ন কর্তৃপক্ষ (বিআইডিএ) এবং বাংলাদেশ হাই কমিশনের অংশীদারিত্বে ‘বাংলাদেশ ইনভেস্টমেন্ট সামিট ২০২১: বিল্ডিং সাস্টেইনেবল গ্রোথ পার্টনারশিপ’ শীর্ষক এক রোড শো আয়োজন করেছে। বাংলাদেশে বিদেশি বিনিয়োগ আকৃষ্ট করতে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা যুক্তরাজ্যে এই রোড শো উদ্বোধন করবেন।

সম্মেলনে বাংলাদেশের একটি উচ্চ পর্যায়ের প্রতিনিধি দলে যুক্তরাজ্যের বেসরকারি উদ্যোক্তা বিনিয়োগকারী, প্রাতিষ্ঠানিক বিনিয়োগকারী, অনাবাসী বাংলাদেশী (এনআরবি) ও প্রতিষ্ঠান অংশ নেবেন। পরে ৮ নভেম্বর যুক্তরাজ্যের ম্যানচেস্টারে ‘দ্য রাইজ অফ বেঙ্গল টাইগার: ট্রেড অ্যান্ড ইনভেস্টমেন্ট পোটেনশিয়ালস ইন বাংলাদেশ’ নিয়ে আরেকটি বিনিয়োগ শীর্ষ সম্মেলন সেন্ট্রাল কনভেনশন কমপ্লেক্স উইন্ডমিল সেন্ট অফ ম্যানচেস্টার এম২ ৩জিএক্স-এ অনুষ্ঠিত হবে। বাংলাদেশে বিনিয়োগের সুযোগ বৃদ্ধি এবং যুক্তরাজ্যের প্রাতিষ্ঠানিক ও বেসরকারি উদ্যোক্তা বিনিয়োগকারীদের আকৃষ্ট করতে বাংলাদেশের একটি উচ্চ পর্যায়ের প্রতিনিধি দলও এই শীর্ষ সম্মেলনে যোগ দিচ্ছেন।

বিশেষজ্ঞদের মতে, বহুজাতিক কোম্পানি তালিকাভুক্ত হলে শেয়ারবাজার শক্তিশালী হয়। তাই বিদেশে এ ধরণের রোড শো খুবই প্রয়োজন। বিনিয়োগে আগ্রহী করতে যে সব সুযোগ-সুবিধা রয়েছে তা তুলে ধরা সম্ভব হয়। একই সঙ্গে পুঁজিবাজারে একাধিক পণ্য বা পণ্য বৈচিত্রায়ন করা গেলে বিনিয়োগকারীদের অংশগ্রহণ বৃদ্ধি পাবে। বাড়বে বিনিয়োগের পরিমাণও। দীর্ঘমেয়াদী মূলধন উত্তোলনে শিল্পখাতের উদ্যোক্তারাও পুঁজিবাজারমুখী হবে।

বাজার সংশ্লিষ্টদের মতে, বিদেশে অবস্থান করা অনেক সম্পদশালী বাংলাদেশি রয়েছেন। যাদের প্রচুর অলস অর্থ রয়েছে। কিন্তু তারা বিনিয়োগ করার মতো নির্ভরযোগ্য কোনো জায়গা খুঁজে পাচ্ছে না। তাদের সঞ্চিত অর্থ পুঁজিবাজারের মাধ্যমে দেশের শিল্পায়নে কাজে লাগাতে চায় সরকার। এছাড়া এই রোড শো’র মাধ্যমে বিদেশী বড় বড় বিনিয়োগকারীদেরও দেশের শেযারবাজারে বিনিয়োগে উৎসাহিত করা হবে।

আয়োজক বিএসইসি’র চেয়ারম্যান প্রফেসর শিবলি রুবায়াত-উল-ইসলাম জানান, যুক্তরাজ্যে আরও বিনিয়োগের জন্য রোড শো’র আয়োজন করা হচ্ছে এবং এতে সরাসরি বিদেশি বিনিয়োগ (এফডিআই) এবং পুঁজিবাজারকে কেন্দ্রীভূত করা হবে। তিনি জানান, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা রোড শো উদ্বোধন করবেন এবং এতে বাংলাদেশ ও যুক্তরাজ্যের ব্যবসায়ীরা অংশ নিবেন। যুক্তরাজ্যে বসবাসকারী অনাবাসী বাংলাদেশীদের সর্বোচ্চ রিটার্নের জন্য পুঁজিবাজারে বিনিয়োগের আহ্বান জানান তিনি। তিনি বলেন, প্রধান প্রধান খাতের উন্নয়নে বাংলাদেশের আরও আন্তর্জাতিক বিনিয়োগ প্রয়োজন। এ ক্ষেত্রে আমরা যুক্তরাজ্যের উদ্যোক্তাদের বাংলাদেশে বিনিয়োগের আহ্বান জানাচ্ছি। বড় ব্যবসায়িক অংশীদার হিসেবে যুক্তরাজ্যের সঙ্গে আমাদের দীর্ঘদিনের বন্ধুত্ব রয়েছে। বিপুল সংখ্যক বাংলাদেশী সে দেশে বাস করে।

বিএসইসির বিদেশের মাটিতে রোড শো আয়োজন প্রবাসী বাংলাদেশিদের ও বিদেশী বড় বড় গ্রুপের মধ্যে দেশে বিনিয়োগের ব্যাপারে যথেষ্ট উৎসাহ ও আশার সঞ্চার হয়েছে। রোড শোতে বিএসইসির ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা প্রবাসীদের জন্য দেশের বিনিয়োগ সুবিধা এবং বিনিয়োগ করে লাভবান হওয়ার ব্যাপারে অনেক আশার কথাও শোনাচ্ছেন। নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক একজন প্রবাসী বিনিয়োগকারী জানিয়েছেন, বিএসইসির বর্তমান চেয়ারম্যান প্রফেসর শিবলি রুবায়াত-উল-ইসলাম বিভিন্ন সময়ে স্পষ্টভাবে উল্লেখ করেছেন, প্রবাসীরা দেশে বিনিয়োগ করে বিনিয়োগের সমুদয় অর্থ লাভসহ বিদেশে নিরাপদে এবং বৈধভাবে ফিরিয়ে আনতে পারবেন। আর এতে নতুন করে উৎসাহ পাচ্ছেন প্রবাসী বিনিয়োগকারীরা।

উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে উপস্থিত থাকবেন প্রধানমন্ত্রীর বেসরকারি শিল্প ও বিনিয়োগ উপদেষ্টা সালমান এফ রহমান, পররাষ্ট্রমন্ত্রী ড. এ কে আব্দুল মোমেন, ভূমিমন্ত্রী সাইফুজ্জামান চৌধুরী, ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশনের মেয়র আতিকুল ইসলাম, আইসিটি প্রতিমন্ত্রী জুনায়েদ আহমেদ পলক, প্রধানমন্ত্রীর মুখ্য সচিব ড. আহমদ কায়কাউস, বাংলাদেশ ব্যাংকের গভর্নর ফজলে কবির, এনবিআর চেয়ারম্যন ও সিনিয়র সচিব আবু হেনা মো. রহমাতুল মুনিম, বিডা’র নির্বাহী চেয়ারম্যান মো. সিরাজুল ইসলাম, বেপজা নির্বাহী চেয়ারম্যান মেজর জেনারেল মো. নজরুল ইসলাম, পাবলিক প্রাইভেট পার্টনারশিপ অথরিটি (পিপিপিএ) সচিব ও প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা সুলতানা আফরোজ, যুক্তরাজ্যে বাংলাদেশের হাইকমিশনার, আইএমওতে বাংলাদেশের স্থায়ী প্রতিনিধি সাইদা মুনা তাসনিম, বিএসইসি কমিশনার শেখ শামসুদ্দিন আহমেদ, বিডা’র নির্বাহী সদস্য মহসিনা ইয়াসমিন, আইসিবি চেয়ারম্যান ড. কিসমাতুল আহসান প্রমুখ।

সংশ্লিষ্টরা জানান, সম্মেলনে বাংলাদেশের একটি প্রতিনিধি দল অংশ নেবে। তারা বাংলাদেশে বিনিয়োগের সুযোগ বাড়ানোর আলোচনা এবং ব্রিটিশ প্রাতিষ্ঠানিক ও বেসরকারি বিনিয়োগকারী আকৃষ্ট করার চেষ্টা করবেন।
পুঁজিবাজারের নিয়ন্ত্রক সংস্থা বিএসইসি’র চেয়ারম্যানসহ উর্ধ্বতন কর্মকর্তা এবং বেসরকারি প্রতিষ্ঠান ইউসিবি স্টক ব্রকারেজ লিমিটেড, ওয়ালটন, এনআরবি কমার্শিয়াল ব্যাংকসহ বেসরকারি খাতের সম্মিলিত প্রচেষ্টায় বিশ্বের বিভিন্ন দেশে প্রবাসী বিনিয়োগকারীদের দেশে বিনিয়োগে উৎসাহিত করতে রোড শো পরিচালনা করছে।

এর আগে বিএসইসি প্রথম দফায় দুবাইতে, দ্বিতীয় দফায় মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রে, তৃতীয় দফায় সুইজারল্যান্ডে সাফল্যের সঙ্গে রোড শো সম্পন্ন করেছে। আর চতুর্থ দফায় যুক্তরাজ্যে রোড সফলভাবে সম্পন্নের পর কাতার, সিঙ্গাপুর, জার্মানি, কানাডা, রাশিয়া, ইতালি, হংকং, জাপান, মালয়েশিয়াসহ বিভিন্ন উন্নত দেশের শহরে ধারাবাহিকভাবে রোড শো আয়োজন করার পরিকল্পনা নিয়েছে বিএসইসি।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *