বিজয় দিবসে সহিংসতার পরিকল্পনা : ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় আটক ২০ শিবির কর্মী!

বিজয় দিবসে সহিংসতার পরিকল্পনা : ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় আটক ২০ শিবির কর্মী!

নিউজ ডেস্ক: দুর্নীতি মামলায় বেগম জিয়ার মুক্তি আদায় বিজয় দিবসে নাশকতা করার পরিকল্পনা অভিযোগ রয়েছে বিএনপি-জামায়াতের বিরুদ্ধে। সাংগঠনিক দুর্বলতায় বিএনপি-জামায়াতের নাশকতার বিষয়টি নিয়ে দেশবাসী চিন্তিত না হলেও গোপনে ঠিকই পরিকল্পনা ও ষড়যন্ত্র চলছে। তারই অংশ হিসেবে এবার বিজয় দিবসে নাশকতার গোপন পরিকল্পনাকালে ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় পুলিশের হাতে ধরা পড়েছেন ছাত্র শিবিরের ২০ জন কর্মী।

তথ্যসূত্রের বরাতে জানা গেছে, আগামী ১৬ ডিসেম্বর ব্রাহ্মণবাড়িয়ার বিভিন্ন স্থানে বোমা হামলা এবং সহিংসতার পরিকল্পনা করছিল জামায়াত-শিবির। গোপন এই ষড়যন্ত্রের বৈঠকের বিষয়ে জানতে পেরে রোববার (১ ডিসেম্বর) দুপুর পৌনে ১২টার দিকে শহরের ভাদুঘর এলাকা থেকে ব্রাহ্মণবাড়িয়া সদর মডেল থানার পুলিশ তাদের আটক করে। এ সময় সেখান থেকে বিপুল সংখ্যক জিহাদি বই, সরকার বিরোধী লিফলেট, জামায়াত নেতাদের প্যাড সিলমোহর, লাঠি ও ৫টি রাম দা জব্দ করা হয়েছে।

আটককৃতদের প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে প্রাপ্ত ভিত্তিতে তথ্যের বরাতে আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর একটি সূত্র জানায়, বিএনপি চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়ার মুক্তি আদায়ে রাজপথে কঠোর কর্মসূচি এবং বিজয় দিবসে সন্ত্রাসী হামলা করে সরকারকে চাপে রাখার পরিকল্পনা কষতে দেশের বিভিন্ন জেলায় গোপন মিটিং ও রাজনৈতিক কার্যক্রম চালাচ্ছে বিএনপি-জামায়াত। মূলত ২০১৮ সালের একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনের বর্ষপূর্তিতে সরকারকে নিজেদের দাবির বিষয়ে কঠোর ম্যাসেজ দিতেই দেশের বিভিন্ন স্থানে হামলার পরিকল্পনা রয়েছে বিএনপি-জামায়াতের। তারই অংশ হিসেবে ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় গোপনে বৈঠক করছিল জামায়াত-শিবিরের কর্মীরা। আটককৃতদের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করার প্রক্রিয়া চলছে বলে জানা গেছে।

শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *