বিশ্বসেরা তালিকায় বাংলাদেশ কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়

বিশ্বসেরা তালিকায় বাংলাদেশ কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়

তাজা খবর:

বিশ্বের সেরা বিশ্ববিদ্যালয়ের তালিকায় স্থান করে নিয়েছে ময়মনসিংহের বাংলাদেশ কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়। এ তালিকায় আছে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় ও বাংলাদেশ প্রকৌশল বিশ্ববিদ্যালয় (বুয়েট)।

বৃহস্পতিবার ভোর ৫টায় অফিশিয়াল ওয়েবসাইটে এ তালিকা প্রকাশ করে টাইম হায়ার অ্যাডুকেশন (টিএইচই)। তালিকায় ১০০১ থেকে ১২০০ এর মধ্যে স্থান করে নিয়েছে বাংলাদেশ কৃষি বিশ্ববিদ্যালয় (বাকৃবি)।

২০১৬-২০ সালের মধ্যে গবেষণাকর্ম, শিক্ষা কার্যক্রম, গবেষণাকর্মের সাইটেশন এবং আন্তর্জাতিক দৃষ্টিভঙ্গির মানদণ্ডের ওপর নির্ভর করে এ তালিকা প্রকাশ করে টাইমস হায়ার অ্যাডুকেশন।

২০২১ সালে ৯৩ দেশের প্রায় ১০ হাজার বিশ্ববিদ্যালয়ের মধ্যে থেকে ১ হাজার ৬৬২টি বিশ্ববিদ্যালয়ের তালিকা প্রকাশ করে প্রতিষ্ঠানটি। এ তালিকায় সবার উপরে রয়েছে ইংল্যান্ডের অক্সফোর্ড বিশ্ববিদ্যালয়।

এ দিকে বৃহস্পতিবার দুপুরে বাংলাদেশ কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়ের (বাকৃবি) এক ওয়েবিনার অনুষ্ঠিত হয়েছে। এতে সভাপতিত্ব করেন ইন্টারন্যাশনাল কোয়ালিটি অ্যাসুরেন্স সেলের (আইকিউএসি) পরিচালক অধ্যাপক ড. মো. তাজউদ্দীন। প্রধান অতিথি ছিলেন ডাক ও টেলিযোগাযোগমন্ত্রী মোস্তফা জব্বার।

অনুষ্ঠানের প্রধান পৃষ্ঠপোষক হিসেবে ছিলেন বাকৃবি ভিসি অধ্যাপক ড. লুৎফুল হাসান। বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন বিশ্ববিদ্যালয় মঞ্জুরি কমিশনের সাবেক চেয়ারম্যান অধ্যাপক আব্দুল মান্নান, বাকৃবির ইমেরিটাস অধ্যাপক ড. এমএ সাত্তার মণ্ডল, বাকৃবি অ্যালামনাই অ্যাসোসিয়েশনের নির্বাহী সভাপতি হাম্মাদুর রহমান।

এ সময় বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্র বিষয়ক উপদেষ্টা অধ্যাপক ড. একেএম জাকির হোসেন, প্রক্টর অধ্যাপক ড. মুহাম্মদ মহির উদ্দীনসহ বিভিন্ন অনুষদের শিক্ষক, শিক্ষার্থী এবং কর্মকর্তা-কর্মচারীরা উপস্থিত ছিলেন।

ডাক ও টেলিযোগাযোগমন্ত্রী মোস্তাফা জব্বার বলেন, বাংলাদেশ কৃষি বিশ্ববিদ্যালয় আগে শুধু জাতীয় পর্যায়ে সেরা ছিল। এখন আন্তর্জাতিকভাবে সেরা হয়েছে। এজন্য গর্ববোধ করছি। কৃষির যে উন্নয়ন ঘটেছে সেটি বঙ্গবন্ধুর হাত ধরেই শুরু হয়েছে। বর্তমান কৃষিতে সেন্সর প্রযুক্তি ব্যবহার করতে হবে। এতে ফসলের কতটুকু পানি অথবা সার লাগবে সেটি যন্ত্র বলে দিবে। পুকুরে মাছের ঘনত্ব, মাছের বৃদ্ধি, খাবারের পরিমাণ নির্ণয় করা যাবে প্রযুক্তির মাধ্যমে। এতে বৃদ্ধি পাবে উৎপাদন, কমবে সময় ও শ্রম।

এ বিষয়ে বাকৃবি ভিসি অধ্যাপক ড. লুৎফুল হাসান বলেন, এ সাফল্যে আমরা উচ্ছ্বসিত। আগামীতে বিশ্বের সেরা ৫০০ বিশ্ববিদ্যালয়ের মধ্যে স্থান করে নিতে আমরা সর্বাত্মক চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছি।

উল্লেখ্য, বিশ্বজুড়ে যে কয়েকটি প্রতিষ্ঠান বিশ্ববিদ্যালয় র‌্যাংকিং প্রকাশ করে থাকে তাদের মধ্যে টাইমস হায়ার অ্যাডুকেশন, কিউএস এবং সাংহাই গ্লোবাল র‌্যাংকিংয়ের ব্যাপক গ্রহণযোগ্যতা রয়েছে।

টাইমস হায়ার অ্যাডুকেশন ছাত্র, শিক্ষক, গবেষক, কার্যনিবাহী, পলিসি মেকার কর্তৃক সর্বাধিক গ্রহণযোগ্য ও সবচেয়ে প্রভাবশালী র‌্যাংকিং প্রকাশিত প্রতিষ্ঠান। বাংলাদেশ সরকারও বিভিন্ন স্কলারশিপ যেমন- প্রধানমন্ত্রী ফেলোশিপে একমাত্র টাইমস হায়ার অ্যাডুকেশনের র‌্যাংকিংকেই বিবেচনায় নিয়ে থাকে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *