রোহিঙ্গাদের ফেরাতে মিয়ানমারকে চাপ দেবে ইইউ, আশা রাষ্ট্রপতির

রোহিঙ্গাদের ফেরাতে মিয়ানমারকে চাপ দেবে ইইউ, আশা রাষ্ট্রপতির

তাজা খবর:

মিয়ানমার থেকে পালিয়ে বাংলাদেশে আশ্রয় নেওয়া রোহিঙ্গাদের ফিরিয়ে নিতে দেশটির উপর ইউরোপীয় ইউনিয়ন চাপ অব্যাহত রাখবে বলে আশাপ্রকাশ করেছেন রাষ্ট্রপতি মো. আবদুল হামিদ।

বাংলাদেশে ইউরোপীয় ইউনিয়নের দূত রেনজি টিরিংক রোববার সন্ধ্যায় বঙ্গভবনে বিদায়ী সাক্ষাৎ করতে গেলে রাষ্ট্রপতি এ আশাবাদ ব্যক্ত করেন বলে জানিয়েছেন তার প্রেস সচিব মো. জয়নাল আবেদীন।

সাক্ষাৎকালে রাষ্ট্রপতি দায়িত্ব পালনকালে ইউরোপীয়ান ইউনিয়ন ও বাংলাদেশের মধ্যে সম্পর্ক জোরদার হওয়ায় বিদায়ী দূতকে ধন্যবাদ জানান।

রাষ্ট্রপতিকে উদ্ধৃত করে প্রেসসচিব বলেন, “ইউরোপীয়ান ইউনিয়ন বাংলাদেশের অন্যতম উন্নয়ন অংশীদার। বাণিজ্য, বিনিয়োগ, অভিবাসন, যোগাযোগ, জলবায়ু পরিবর্তনসহ বিভিন্ন ক্ষেত্রে ইউরোপিয়ান ইউনিয়নের সহযোগিতা বাংলাদেশের উন্নয়নে অবদান রাখছে।”

তিনি বলেন, ইউরোপীয় ইউনিয়নের সদস্য দেশগুলো নীতি নির্ধারণের ক্ষেত্রে বাংলাদেশের অর্থনৈতিক প্রবৃদ্ধি ও ভূরাজনৈতিক পরিস্থিতি বিবেচনায় নেবে বলেও রাষ্ট্রপতি আশাপ্রকাশ করেন।

এসডিজি অর্জনে সহযোগিতা দেওয়ায় ইউরোপীয় ইউনিয়নকে ধন্যবাদ জানিয়ে আগামী দিনেও তা অব্যাহত থাকবে বলে প্রত্যাশা ব্যক্ত করেন তিনি।

প্রেস সচিব বলেন, “মিয়ানমার থেকে জোরপূর্বক বাস্তুচ্যূত রোহিঙ্গাদের মানবিক সহায়তা প্রদানের জন্য ধন্যবাদ জানিয়ে রাষ্ট্রপতি আশা করেন, রোহিঙ্গাদের স্বদেশে প্রত্যাবাসনে ইউরোপী ইউনিয়ন মিয়ানমারের ওপর চাপ অব্যাহত রাখবে।”

ইউউ বিদায়ী দূত করোনাভাইরাস পরিস্থিতি মোকাবিলা ও অর্থনীতির চাকা সচল রাখতে সরকারের গৃহীত বিভিন্ন পদক্ষেপের প্রশংসা করেন। তিনি বাংলাদেশে দায়িত্ব পালনকালে সার্বিক সহযোগিতার জন্য রাষ্ট্রপতির প্রতি কৃতজ্ঞতা জানান।

রাষ্ট্রপতির কার্যালয়ের সচিব সম্পদ বড়ুয়া, রাষ্ট্রপতির সামরিক সচিব মেজর জেনারেল এসএম সালাহ উদ্দিন ইসলাম, প্রেস সচিব মো. জয়নাল আবেদীন এবং সচিব (সংযুক্ত) ওয়াহিদুল ইসলাম খান এসময় উপস্থিত ছিলেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *