সারাদেশে সিনোফার্মের টিকা দেওয়া শুরু আজ

সারাদেশে সিনোফার্মের টিকা দেওয়া শুরু আজ

তাজা খবর:

করোনাভাইরাস প্রতিষেধক চীনের সিনোফার্মের টিকা সারাদেশে দেওয়া শুরু হচ্ছে আজ বৃহস্পতিবার। সকাল ৮টা থেকে বেলা ৩টা পর্যন্ত দেশের সব জেলা সদর হাসপাতাল, মেডিকেল কলেজ ও হাসপাতালসহ টিকাদান কেন্দ্রগুলোতে এ কার্যক্রম চলবে। একই সঙ্গে আজ থেকে রাজধানীর সাতটি কেন্দ্রে ফাইজারের টিকাও দেওয়া শুরু হবে। গতকাল বুধবার স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের বুলেটিনে মাতৃ, নবজাতক ও শিশুস্বাস্থ্য (এমএনসিঅ্যান্ডএইচ) কর্মসূচির লাইন ডিরেক্টর ডা. শামসুল হক এ তথ্য জানান।

ভারতের সেরাম ইনস্টিটিউট থেকে চুক্তি অনুযায়ী টিকা না পাওয়ায় গত ২৬ এপ্রিল থেকে দেশে প্রথম ডোজের টিকাদান কার্যক্রম বন্ধ রাখা হয়। এরপর ফাইজার ও সিনোফার্মের টিকার প্রথম ডোজ দেওয়া হলেও তা ছিল সীমিত পরিসরে। আজ আবারও সারাদেশে টিকাদান কার্যক্রম শুরু হতে যাচ্ছে। ডা. শামসুল হক বলেন, টিকা পাওয়ার অগ্রাধিকার তালিকায় থাকা ব্যক্তিরা ছাড়াও আগে থেকে নিবন্ধন করে টিকা পাননি- এমন ব্যক্তিরা সিনোফার্মের এই টিকা পাবেন। অগ্রাধিকার তালিকার জন্য নিবন্ধন কার্যক্রম বুধবার থেকেই খুলে দেওয়া হয়েছে। মেডিকেল, নার্সিং, আইএইচটি-ম্যাটস এবং সরকারি বিশ্ববিদ্যালয়ের তালিকাভুক্ত শিক্ষার্থীরা এই টিকা পাবেন। এ ছাড়া অন্যান্য অগ্রাধিকার কর্মীরাও নিবন্ধন করে এই টিকা নিতে পারবেন।

তিনি আরও বলেন, নিবন্ধনকারী ব্যক্তির কাছে কেন্দ্র থেকে এসএমএস যাবে। এসএমএস পাওয়া সাপেক্ষে আগের মতোই টিকাদান কেন্দ্রে গিয়ে টিকা নেওয়া যাবে। কেন্দ্রে যাওয়ার সময় অবশ্যই টিকা কার্ড নিয়ে যেতে হবে। যেসব প্রবাসী কর্মী সিনোফার্মের টিকা নিতে চান তারাও নিতে পারবেন। প্রবাসীকল্যাণ মন্ত্রণালয়ের দেওয়া তালিকা অনুযায়ী তারা নিবন্ধন করতে পারবেন। নিবন্ধন অনুযায়ী, ঢাকার বাইরের কেন্দ্র থেকেও টিকা নেওয়া যাবে।

স্বাস্থ্য অধিদপ্তর জানিয়েছে, ঢাকায় ৪৮টি কেন্দ্রের মধ্যে আটটি কেন্দ্র বাদ রেখে সিনোফার্মের টিকা দেওয়া হবে।

ফাইজারের টিকাদান সাত কেন্দ্রে :আজ থেকে ফাইজার-বায়োএনটেকের তৈরি টিকাও রাজধানীর সাতটি কেন্দ্রে বিতরণ করা হবে। বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয়, ঢাকা মেডিকেল কলেজ ও হাসপাতাল, শহীদ সোহরাওয়ার্দী মেডিকেল কলেজ ও হাসপাতাল, স্যার সলিমুল্লাহ মেডিকেল কলেজ ও হাসপাতাল, মুগদা মেডিকেল কলেজ ও হাসপাতাল, কুর্মিটোলা জেনারেল হাসপাতাল এবং শেখ রাসেল জাতীয় গ্যাস্ট্রোলিভার ইনস্টিটিউট ও হাসপাতাল কেন্দ্র থেকে এ টিকা নেওয়া যাবে।

প্রবাসী কর্মীদের এ টিকা দেওয়া হবে উল্লেখ করে ডা. শামসুল হক বলেন, যেসব প্রবাসী কর্মী ফাইজারের টিকা ছাড়া বিদেশ যেতে পারছেন না, এ মুহূর্তে তারাই শুধু এই কেন্দ্রগুলো থেকে টিকা নিতে পারবেন। এ জন্য জনশক্তি উন্নয়ন ব্যুরো থেকে তালিকা দেওয়া হবে। এসব কেন্দ্রে অগ্রাধিকার তালিকায় থাকা ব্যক্তিদের সিনোফার্মের টিকা নিতে অন্য কেন্দ্রে যেতে হবে।

গত ৩১ মে কোভ্যাক্স সুবিধার আওতায় ফাইজার-বায়োএনটেকের এক লাখ ৬০২ ডোজ টিকা দেশে পৌঁছানোর পর ২১ জুন এই টিকা দেওয়া শুরু হয়। তবে যারা এই টিকা নিয়েছিলেন, তাদের সাত দিনের পর্যবেক্ষণে রাখা হয়। এরপর আজ থেকে এই টিকা দেওয়া শুরু হচ্ছে। একই সঙ্গে দু’দফায় চীনের সিনোফার্মের ১১ লাখ ডোজ উপহার হিসেবে পেয়েছে বাংলাদেশ। এ ছাড়া আগামী দুই থেকে তিন দিনের মধ্যে যুক্তরাষ্ট্র থেকে কোভ্যাক্সের আওতায় মডার্নার টিকার ২৫ লাখ ডোজ আসছে। চীন থেকে কেনা টিকার একটি বড় চালানও এক সপ্তাহের মধ্যে আসবে বলে সংশ্নিষ্টরা জানিয়েছেন। চলতি জুলাই থেকেই আবারও সারাদেশে গণটিকাদান কার্যক্রম শুরু হবে বলে স্বাস্থ্য বিভাগের একাধিক সূত্র নিশ্চিত করেছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *